ফটো এডিটিং থেকে মাসে ৪০ হাজার টাকা কিভাবে কামানো যায় – Photo Editing Business in Bangla

photo editing theke taka income
Spread the love

আজকের সময়ে, স্মার্টফোনের আবির্ভাবের সাথে ফটো ক্লিক করা খুব সহজ হয়ে গেছে। এবং শুধু ফটো ক্লিক করা নয়, এটি বিভিন্ন উপায়ে এডিট করা যাতে ফটো তে যে মানুষটি অথবা মানুষ গুলো আছে তাদের কে আরো সুন্দর লাগে এবং সোশ্যাল মিডিয়ায় আপলোড করা একটি প্রবণতা হয়ে দাঁড়িয়েছে। আজকাল কার দিনে অনেক মানুষ তো শুধু মাত্র সোশ্যাল মিডিয়া তে ফটো ছাড়ার জন্যে ফটো তোলে। এটার পেছনে কারণ হলো সবার কাছে আজকাল দামি দামি মোবাইল ফোন আছে যার মাধ্যমে খুব সহজে খুব সুন্দর ফটো তোলা যায়। আগের সময়ে, যখন ইন্টারনেট সুবিধা ছিল না, এই কাজটি ফটো স্টুডিও দ্বারা করা হত, এবং তারা বিনিময়ে ভাল অর্থ পেতেন। কিন্তু এখন স্মার্টফোন তার জায়গা নিয়েছে। আজ, স্মার্টফোনেই অনেক ফটোশপ অ্যাপ পাওয়া যায়, যেখান থেকে যে কোনও ফটো যে কোনও আকারে খুব সুন্দর ভাবে এডিট করা যায়। এবং প্রযুক্তি এতটাই বৃদ্ধি পেয়েছে যে মানুষ এই কাজ থেকে হাজার হাজার নয় , লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করতে শুরু করেছে। এই কাজ করে অর্থ উপার্জন করা খুব সহজ, আমরা আপনাকে এই নিবন্ধে কিছু উপায় বলতে যাচ্ছি যে মাসে আপনি কি ভাবে অন্তত ৪০ হাজার টাকা ফটো এবং ভিডিও এডিটিং করে ইনকাম করতে পারবেন। মনে রাখবেন যে আমি যেই টাকার অংক টা বলেছি সেটা সবথেকে কম এমাউন্ট যেটা আপনি আয় করতে পারবেন। আপনি যদি ভালো করে কাজ করতে পারেন তাহলে আপনি হয়তো আরো অনেক বেশি আয় করতে পারেন।

ছবি সম্পাদনার ব্যবসা

আজকাল সাধারণত প্রত্যেকে তাদের ছবি অথবা তাদের পারিবারিক ছবি অথবা বন্ধুদের সাথে ছবি এডিট করতে হয়। যাতে সেই ছবিটি আরও ভাল দেখায় এবং এটি সোশ্যাল মিডিয়ায় রাখার পরে, লোকেরা এটি দেখতে আকৃষ্ট হতে পারে। আপনি তো জানেন যে, যে কোনো বিয়ে বাড়িতে অথবা অনুষ্ঠান বাড়িতে যদি ক্যামেরা ম্যান যতক্ষন না আসে ততক্ষন কেউ কিছু শুরু করতে পারে না। আগে কার দিনে শুধুমাত্র বিয়ে তে ছবি তোলা হতো তার পার আসলো ভিডিওর যুগ। আর এখন মানুষ বিয়ের আগে Pre Wedding ফটো শুট , Wedding ফটো শুট , তারপরে আবার আফটার wedding ফটো শুট, বিবাহ বার্ষিকী ফটো সূত্রে, আরো না জানে কত রকমের ফটো সূত্রে মানুষেরা করে থাকে। আপনি যদি ফটো শুট করার জন্যে কম দামের মধ্যে খুব সুন্দর ক্যামেরা কোনটা আপনি দেখতে চান তাহলে এই ক্যামেরা টা আপনি দেখতে পারেন। কারণ আজকাল বেশিরভাগ মানুষ তাদের ছবি তুলতে ভালোবাসছে আর এডিট করছে কিন্তু কিছু মানুষ নিজেরাই এই কাজ করে, আর কিছু মানুষ এই কাজ পারে না। আপনি নিজেই ভেবে দেখুন কেউ কি আর তাদের বিয়ের ফটো নিজে এডিট করতে বসবে ? এমন পরিস্থিতিতে, তারা বাইরের কারও দ্বারা ছবি তোলায় আর এডিট করায় । অনেক মানুষ আছেন যারা ফটো এডিটিং করতে পছন্দ করেন, যদি আপনিও তাদের মধ্যে একজন হন, তাহলে আপনি মানুষের ছবি এডিট করতে পারেন এবং তাদের কাছ থেকে টাকা নিতে পারেন। যদি আপনি খুব ভালো ছবি তুলতে আর এডিট করতে সক্ষম হন তাহলে আরও বেশি সংখ্যক মানুষ আপনাকে এই কাজটি করতে বাধ্য করবে, তাহলে আপনি এটি থেকে খুব ভাল আয় পেতে পারেন।

ghore bose aye korun | ghore bose income in kolkata | ghore bose taka income korar upay | online e taka income | online photo editor free bangla | online taka income bd | taka income apps bangladesh | taka income korar app | taka income korar software

ফটো এডিটিং ব্যবসা শুরু করার গুরুত্বপূর্ণ দক্ষতা

আপনি যদি ছবি এডিট করে অর্থ উপার্জন করতে চান, তাহলে এটি প্রয়োজনীয় যে আপনি কিভাবে দারুণ ফটো এডিটিং করতে জানেন। অতএব, এর জন্য গুরুত্বপূর্ণ দক্ষতা থাকা প্রয়োজন। ফটোতে কিভাবে রঙ পরিবর্তন করতে হয়, ফটোতে অন্য কিছু যোগ করুন, অথবা ব্লার বা কিছু ক্রপ করুন ইত্যাদি। এমনকি যদি আপনি এই কাজটি করতে জানেন না, তাহলে চিন্তার কোন প্রয়োজন নেই। আপনি ইন্টারনেটের সাহায্যে বিভিন্ন অ্যাপের মাধ্যমে অথবা ইউটুবে মাধ্যমে এই কাজটি করতে শিখতে পারেন। কিন্তু আপনাকে মনে রাখতে হবে যে আপনি যদি একজন প্রফেশনাল ফটোগ্রাফার আর এডিটর হতে চান তাহলে আপনাকে ক্যামেরা সাথে সাথে একটা কম্পিউটার অথবা ল্যাপটপ থাকা খুব দরকার। আমি আপনাদের জন্যে রিসার্চ করে খুব ভালো একটা কম দামের মধ্যে ল্যাপটপ খুঁজে বের করেছি যেটা আপনাকে ফটো এডিট করতে সাহায্য করবে।পারে যদি আপনার এই কাজ করে ভালো টাকা ইনকাম হয় তারপর না হয় আপনি আরও ভালো কম্পিউটার কিনে নেবেন। এই লিংক এ ক্লিক করে আপনি ল্যাপটপ টি একবার দেখতে পারবেন

ফটো এডিটিং এর জন্য কিছু অ্যাপ এবং ওয়েবসাইট

আপনি যদি ফটো মোবাইল ফোন এ এডিটিং করতে চান, তাহলে আপনি Snapseed, PicsArt, Adobe, Color Maker, Pic shot ইত্যাদি বিভিন্ন অ্যাপ ব্যবহার করতে পারেন। এর বাইরেও কিছু ওয়েবসাইট আছে যার মাধ্যমে ফটো এডিটিং ব্যবসা করা হয় যেগুলো হল Fiverr, Upwork এবং Peopleperhour ইত্যাদি। এই ওয়েবসাইট গুলো হলো অনলাইন ওয়েবসাইট যেখান থেকে আপনি চাইলে ফটো এডিটিং এর জন্যে অর্ডার নিতে পারেন।

কিভাবে ফটো এডিটিং ব্যবসা শুরু করবেন

ওয়েবসাইটের মাধ্যমে:-

ইন্টারনেটে অনেক ওয়েবসাইট আছে যেগুলো ফটো এডিটিং এর কাজ করে। আপনি যদি সেই ওয়েবসাইটগুলির সাথে সংযোগ স্থাপন করে ব্যবসা করতে চান, তাহলে আপনাকে প্রথমে সেই ওয়েবসাইটগুলিতে নিজেকে নিবন্ধন অথবা signup করতে হবে। এর পরে, যখন আপনি এই ওয়েবসাইটে লগ ইন করবেন, আপনি ফটো এডিটিং সম্পর্কিত অনেক ধরনের কাজ দেখতে পাবেন। সারা বিশ্বের মানুষ এই ওয়েবসাইটগুলির সাথে সংযুক্ত। ফটো এডিটিং সম্পর্কিত যে কোন কাজই আপনাকে করতে হবে এবং আপনি এতে আগ্রহী হলে, আপনি এটি বেছে নিতে পারেন। পছন্দ করার পরে, আপনাকে এটিতে একটি বার্তা পাঠাতে হবে যে আপনি সেই কাজটি করতে চান। এখানে, সেই কাজটি করার জন্য আপনি কত টাকা পাবেন, তাও দেওয়া আছে। তাই এই ভাবে আপনি ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ছবি এডিট করে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। আমি ওপরে কয়েক তা ওয়েবসাইট এর কথা বলেছি যেখান থেকে আপনি ফটো এডিটিং এর কাজ পেতে পারেন। বেশি জানার জন্যে আপনি বিনিয়োগ ছাড়াই বিশ্বস্ত অনলাইন অর্থ উপার্জন ওয়েব সাইট নিবন্ধ টি পড়তে পারেন।

সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে:-

এর বাইরে, সোশ্যাল মিডিয়াও ছবি সম্পাদনার ব্যবসা শুরু করার আরেকটি উপায়। আপনি ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম এবং Pinterest ইত্যাদি যেকোনো সামাজিক মিডিয়াতে আপনার অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে পারেন। এর পরে আপনাকে একটি পৃষ্ঠা তৈরি করতে হবে যেখানে আপনি আপনার সম্পাদনা করা সমস্ত ছবি পোস্ট করবেন। মনে রাখবেন যে আপনি যেই ছবিটি এডিট করেছেন সেটা এডিট করার আগে কেমন ছিল আর এডিট করার পারে কেমন হয়েছে , দুটোই কিন্তু আপনাকে পোস্ট করতে হবে। আপনার সম্পাদিত ছবি যদি মানুষ পছন্দ করে, তাহলে তারা আপনাকে সোশ্যাল মিডিয়াতে অনুসরণ করবে। এবং আপনাকে ফটো এডিটিং সম্পন্ন করার আদেশও দেবে। আপনি তাদের কাছ থেকে অর্থের বিনিময়ে ভাল অর্থ উপার্জন করতে পারেন। যাতে লোকেরা আপনার সাথে যোগাযোগ করতে পারে, আপনার পৃষ্ঠাটিতে আপনার যোগাযোগের বিবরণ যেমন মোবাইল নম্বর, ইমেল আইডি এবং হোয়াটসঅ্যাপ নম্বর ইত্যাদি দেওয়া উচিত।

গ্রাফিক্স ডিজাইনিং এর মাধ্যমে:-

আপনি যদি গ্রাফিক্স ডিজাইনিং করতে পছন্দ করেন, তাহলে এর মাধ্যমেও ছবি সম্পাদনা করে ব্যবসা করা যায়। গ্রাফিক্স ডিজাইনিং জিনিস তা যে আসছে ভবিষ্যত এ যে কত পপুলার হতে চলেছে তা আপনি হয়তো এখন ভাবতে পারবেন না। আপনাকে যদি বুজতে হয় যে গ্রাফিক্স ডিজাইনিং টা কি জিনিস তাহলে আপনি এই আর্টিকেল টা পড়া হয়ে গেলে একবার ইউটুবে এ হয়ে সার্চ করে দেখবেন যে গ্রাফিক্স ডিজাইনিং টা কি জিনিস। এই ওয়েবসাইটগুলো যারা গ্রাফিক্স ডিসাইন ব্যাবহার করে তারা হলো হলো Shutterstock.Com, Istockphoto.com এবং Graphicstocs.com ইত্যাদি। আপনার অনুযায়ী গ্রাফিক্স ডিজাইন করার পর, আপনি এই ওয়েবসাইটগুলোর কাছে আপনার ডিজাইন বিক্রি করে বা কমিশন নিয়ে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। এর জন্য আপনাকে এতে আপনার অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে হবে। এর সাহায্যে আপনি ব্যানার, আইকন, পোস্টার ইত্যাদি তৈরি করে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। ফটো এডিটিং এর মাধ্যমে অর্থ উপার্জনের জন্য এটি একটি দুর্দান্ত ধারণা।

ইউটিউবের মাধ্যমে:-

আপনি কীভাবে ফটো এডিটিং করবেন তার একটি ভিডিও তৈরি করে এবং এটি আপনার নিজের একটি ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। কিন্তু এর জন্য প্রয়োজন যে আপনি আপনার নিজের একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করুন, যেখানে আপনি আপনার ভিডিও আপলোড করতে পারবেন এবং মানুষ তা দেখতে পারবে। আপনার ফটো এডিটিং ভিডিওতে, আপনাকে সবকিছু খুব ভালভাবে ব্যাখ্যা করতে হবে, আপনি এটি কীভাবে করবেন, আপনি কোন সরঞ্জামগুলি ব্যবহার করেন, আপনি কীভাবে অর্থ উপার্জন করেন ইত্যাদি ইত্যাদি, তাই এর একটি সম্পূর্ণ টিউটোরিয়াল থাকা উচিত। এর পরে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি মার্কেটিং করুন, মানুষকে সে সম্পর্কে বলুন, যত বেশি মানুষ আপনার ভিডিও দেখবে এবং সাবস্ক্রাইব করবে, তত বেশি আপনার ইনকাম বাড়বে।

তাই ছবি সম্পাদনা করে অর্থ উপার্জনের এই কয়েকটি উপায় ছিল। এই সমস্ত পদ্ধতি এমন যে আপনি এটি আপনার বাড়িতে বসেও করতে পারেন। আপনাকে কোথাও যেতে হবে না।

ফটো এডিটিং ব্যবসা থেকে উপার্জন

ফটো এডিটিং ব্যবসা এমন একটি ব্যবসা যেখানে আপনাকে কম কিছু বিনিয়োগ করে, কিন্তু প্রতি মাসে কমপক্ষে 20 থেকে 40 হাজার টাকা আয় করতে পারবেন। যদিও শুরুতে আপনি এটি থেকে তেমন সুবিধা পাবেন না কিন্তু যখন লোকেরা আপনার কাজ পছন্দ করতে শুরু করবে, তখন তারা আপনার সাথে যোগাযোগ করবে এবং আপনার আয় বাড়বে। মনে রাখবেন আমরা আমাদের ওয়েবসাইট এ যেই সব জিনিস নিয়ে আলোচনা করি সেগুলো থেকে আয় করার কোনো লিমিট নেই। জাত দিন যাবে আপনি চাইলে আপনার আয় বাড়াতে পারবেন।

প্রায়শই জিজ্ঞাসিত প্রশ্নাবলী

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *